দিনাজপুরে লাইট হাউস কনসোর্টিয়াম এর আয়োজনে অবহিতকরণ সভা অনুষ্ঠিত

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

নুর ইসলাম, দিনাজপুর থেকে বিশেষ প্রতিনিধি : ১৭ নভেম্বর রোববার লাইট হাউস কনসোর্টিয়াম দিনাজপুর এর আয়োজনে জেলা সিভিল সার্জন কার্যালয়ের হলরুমে প্রায়োরাটাইজড এইচআইভি প্রিভেশন সার্ভিসেস ফর কি পপুলেশন (এসএমএস এমএস ডাব্লিউ, হিজড়া) ইন বাংলাদেশ প্রকল্পের আওতায় স্বাস্থ্য সহকারী, পুলিশ প্রতিনিধি, গণ মাধ্যম কর্মী, ধর্মীয় প্রতিনিধি, আইন বিষয়ক প্রতিনিধি, জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক প্রতিনিধি ও হিজড়া স¤প্রদায়ের প্রতিনিধিদের নিয়ে অবহিতকরণ সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। উক্ত অবহিতকরণ সভায় প্রধান অতিথি ছিলেন অতিরিক্ত জেলা ম্যাজিষ্ট্রেট মোঃ শরিফুল ইসলাম। সভায় দিনাজপুর সিভিল সার্জন মোঃ আব্দুল কুদ্দুছ এর সভাপতিত্বে অন্যান্য অতিথিদের মধ্য উপস্থিত ছিলেন ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট দিনাজপুর জেলারেল হাসপাতালের তত্ত¡াবধায়ক ডাঃ মোঃ আহাদ আলী, দিনাজপুর সিভিল সার্জন কার্যালয়ের মেডিকেল অফিসার ডাঃ মোঃ রায়হান সাঈদ, সিনিয়র হেলথ এডুকেশন অফিসার মোঃ সাইফুল ইসলাম, লাইট হাউস দিনাজপুরের ডিআইসি ম্যানেজার মোঃ জাহাঙ্গীর আলম প্রমুখ। অনুষ্ঠানটির সঞ্চালনায় ছিলেন জুনিয়র হেলথ এডুকেশন অফিসার মোঃ নুরুল ইসলাম। এইচআইভি এইড একটি সংক্রামক ব্যধি, উক্ত ব্যধি হতে নিরাময়ের উপর বক্তারা বিভিন্ন বিষয় তুলে ধরেন। বিশেষ করে ধর্মীয় দৃষ্টিতে ধর্মীয় প্রতিনিধিগণ বলেন, এইচআইভি এইডস বিষয়টি সম্পর্কে ধর্মীয় দৃষ্টিতে লক্ষ করলে দেখা যাবে সাংসারিক জীবনে একে অপরের দৈহিক চাহিদা রয়েছে। এ সকল চাহিদা আমরা নিয়ন্ত্রণ করতে সক্ষম নই। তাই দৈহিক চাহিদা নিয়ন্ত্রণে রাখতে পরিপূর্ণভাবে সৃষ্টিকর্তার কাছে ইবাদতের কাজে নিজেকে নিয়োজিত রাখতে পারলে তবেই এই ধরনের দৈহিক চাহিদা থেকে বিরত থাকা সম্ভব। অপরদিকে জনপ্রতিনিধিগণ বলেন, হিজড়ারা সমাজে অবহেলিত রয়েছে। তাদের প্রয়োজন একটি দু নির্দিষ্ট কর্মসংস্থান যার মাধ্যমে তারা নিজেদের পরিবার ও নিজের দৈনন্দিন জীবনের চাহিদা পূরণ করতে পারবে। তাই তাদের কোঠার মাধ্যমে সরকারি প্রতিষ্ঠানে চাকুরী প্রদানের নিশ্চয়তা প্রদান করতে হবে। তাদের কোষ্ঠার মাধ্যমে চাকুরীর নিশ্চয়তা প্রদান করলে তারা আর অবহেলিত থাকতে না এবং তাদের দ্বারা সমাজে ভালো কিছু পাওয়ার সম্ভাবনা থাকবে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*