বিরামপুরের পরিত্যক্ত জেলখানাটি হবে কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্র

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আব্দুর রাজ্জাক, বিশেষ প্রতিনিধি দিনাজপুরের বিরামপুর উপ-কারাগার (পরিত্যক্ত) পরিদর্শনে আসেন সমাজসেবা অধিদফতর এর পরিচালক (প্রতিষ্ঠান) আবু মাসুদ (উপসচিব) , উপ-পরিচালক প্রতিষ্ঠান-১ হরিশ চন্দ্র বিশ্বাস, উপ-পরিচালক প্রতিষ্ঠান-২ হাবিবুর রহমান ও উপ-সহকারী প্রকৌশলী শংকর কুমার হাওলাদার।

এসময় উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে ও জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের পক্ষে ফুলেল শুভেচছা জানান বিরামপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার তৌহিদুর রহমান ও জেলা সমাজসেবা কার্যালয়ের সহকারী পরিচালক ফজলুল হক।

১১ ডিসেম্বর ২০১৯ বুধবার উর্ধতন কর্মকর্তাদের পরিদর্শন উপলক্ষে বিরামপুর উপজেলা সমাজসেবা অফিসার রাজুল ইসলাম সহ উপজেলা সমাজসেবা অফিসার ঘোড়াঘাট, উপজেলা সমাজসেবা অফিসার নবাবগঞ্জ, উপজেলা সমাজসেবা অফিসার হাকিমপুর উপস্থিত ছিলেন।

উপকারাগারটি “কিশোর উন্নয়ন কেন্দ্র ” নির্মাণ করা জন্য তারা পরিদর্শন করেন।

জানা যায়, বিরামপুরের ভূতুড়ে বাড়ি হিসেবে কয়েক যুগ আলোর মুখ না দেখা এই উপ-কারাগারটি সাবেক রাষ্ট্রপতি হুসেইন মোহাম্মাদ এরশাদ সরকারের শাসনামলে হাজতী ও কয়েদীদের রাখার জন্য বিরামপুর জেলখানাটি চালু করা হয়। যা দিনাজপুর জেলার দক্ষিন- পুর্বাংশের ৫ উপজেলার আসামীদের রাখার জন্য ১৯৮৪ই সালে এই উপ-কারাগারটি নির্মান করা হয়েছিল ।

তৎকালীন বাংলাদেশের বিভিন্ন উপজেলা সদরে ফৌজদারী ও দেওয়ানী মামলা পরিচালনা করার জন্য ম্যাজিষ্ট্রেট আদালত স্থাপন করা হয়েছিল । ১৯৯১ সালে উপজেলা আদালত গুলোকে জেলা সদরে স্হানান্তর করায় এই উপ-কারাগারের প্রয়োজনীয়তা ম্লান হয়ে পড়ে ।

কিন্তু জেলা সদর থেকে বিচারিক কার্যক্রম পরিচালনা হওয়াতে বিরামপুরের এই কারাগারটি বন্ধ হয়ে যায়।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*