বিরামপুরে জয়িতা অন্বেষণে ‘সফল জননী’ আসুদা বেগম

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

আব্দুর রাজ্জাক, বিশেষ প্রতিনিধি- দিনাজপুরের বিরামপুর উপজেলার জয়িতা অন্বেষণে বাংলাদেশ এর আওতায় বিভিন্ন ক্যাটাগরিতে পৌরশহরের পূর্বজগন্নাথপুর ৪নং ওয়ার্ডে তিলোত্তমা ‘সফল জননী’ নারী আসুদা বেগম তার দুই সন্তান এক ছেলে ও এক মেয়ে সন্তান।

বিরামপুর উপজেলা প্রশাসন ও মহিলা বিষয়ক দপ্তরের আয়োজনে আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ পক্ষ ও বেগম রোকেয়া দিবস-২০২০ উদযাপন উপলক্ষে ৯ ডিসেম্বর বুধবার বিরামপুর উপজেলা পরিষদ চত্বরে ক্রেস্ট ও সনদ প্রদানের মাধ্যমে তাকে সফল জননীর সংবর্ধনা প্রদান করা হয়েছে।

সফল জননী নারী আসুদা বেগম জানায়, তার জন্ম ১৯৫৩ সালের ১৬ ফেব্রুয়ারী শিক্ষাগত যোগ্যতা এইচএসসি পাশ, বর্তমান বয়স ৬৮ বছর তিনি সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে শিক্ষিকা নিয়োজিত ছিলেন ২০১১ সালে চাকুরী থেকে অবসর গ্রহণ করেন।

২০০৫ সালে স্বামী মাহমুদ হোসেন সরকারের মৃত্যু পর সংসারে নেমে আসে অর্থনৈতিক সমস্যা। তিনি আরও জানান বর্তমান তিনি পেনশনের টাকায় ও সন্তানদের উপর নির্ভরশীল।

আসুদা বেগম জানায়, অতিকষ্টে সংসার জীবন জীবিকা চলার ফাঁকেফাঁকে প্রথম ছেলে এস এম আরশাদ ইমাম (৪৮) বিরামপুর পাইলট উচ্চ বিদ্যালয় থেকে এসএসসি পাশ করে, পরে রাজশাহী কলেজ থেকে এইচএসসি পাশ করে, এরপর ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএ (অর্নাস) এমএ পাশ করে এখন সে সরকারী চাকুরীর বিসিএস ১৮তম ব্যাচ সে যুগ্মসচিব তার কর্মস্থল পরিচালক (পাট অধিদপ্তর) বস্ত্র ও পাট মন্ত্রণালয়।

মেয়ে মুনিরা সুলতানা (৪৪) ময়মনসিং গার্লস ক্যাডেট কলেজ থেকে এসএসসি ও এইচএসসি পাশ করে এরপরে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে বিএ (অর্নাস) এমএ ইংরেজি পাশ করে এমাএ-পাবলিক পলিসি, মেইজি বিশ্ববিদ্যালয় টোকিও জাপান। উপ-সচিব (বিসিএস প্রশাসন, ২২তম ব্যাচ) এবং কর্মস্থল দূর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রান মন্ত্রনালয় ।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*