হিলিতে রাতের আধাঁরে ধানকাটা শ্রমিক সেজে ঢাকার পথে গার্মেন্টস কর্মীরা : চাকরীচ্যুতর ভয়ে আইন অমান্য !

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

মোসলেম উদ্দিন, বিশেষ প্রতিনিধি :করোনা মোকাবিলায় দিনাজপুর জেলাকে লকডাউন ঘোষনার পরও ধানকাটা শ্রমিক সেজে ঢাকা পথে যাওয়া সময় মিনি বাসসহ শতাধিক গার্মেন্টস কর্মীরা আটক হয়েছে হিলির আনসার ভিডিপি’র সদস্যদের হাতে।

রোববার (১০ মে) রাত ১১ টায় হিলি রাজধানী মোড় চেকপোস্টে  বাসটি সহ ঢাকার গার্মেন্টস  কর্মীদের আটক করা হয়।

ভিডিপি সদস্য মহাববত হোসেন বলেন, রাত ১১ টায় দিনাজপুরের আমবাড়ি থেকে আসা ঢাকার একটি মিনি বাস (ঢাকা মেট্রো-ব ১৫-১৩-৪০) কে তল্লাশির জন্য দাঁড় করি। গাড়িটি সামনে সাদা কাগজে ধানকাটা শ্রমিক লিখা আছে। সন্দেহ হলে যাত্রীদের জিজ্ঞাসাবাদ করে বুঝতে পারি তারা ধানকাটা শ্রমিক নই। তারা ঢাকার বিভিন্ন গার্মেন্টসের গার্মেন্টসকর্মী। পরে গাড়িসহ কর্মীদের আটক করে হাকিমপুর (হিলি) উপজেলা নির্বাহী অফিসারকে অবগত করি।

হাকিমপুর উপজেলা নির্বাহী অফিসার আব্দুল রাফিউল আলম বলেন, আনসার ভিডিপি সদস্যারা খবর দিলে ঘটনাস্থলে যাই। যেহেতু লকডাউনেরর কারণে দেশে সকল গণপরিবহন চলাচল নিষিদ্ধ করেছে সরকার। সরকারী নির্দেশ অমান্য করায় গাড়িসহ তাদের আটক করা হয়েছে। মুলত যাত্রীবাহী বাসটি আমবাড়ি হতে ঢাকার উদ্দেশে যাচ্ছিলো।

হাকিমপুর থানা অফিসার ইনচার্জ আব্দুর রাজ্জাক আকন্দ বলেন, ফোনে ইউএনও মহোদয় বিষয়টি জানালে পুলিশের একটি মোবাইল টিম নিয়ে রাজধানী মোড়ে উপস্থিত হয় এবং বাস থেকে যাত্রীদের নামিয়ে বাসটি জব্দ করি। বাসের সুপার ভাইজারের নিকট হতে যাত্রীদের দেওয়া ভাড়ার টাকা ফিরিয়ে দেওয়া হয়।

তিনি আরও বলেন, বাসটি সরকারী নির্দেশ অমান্য করেছে। বাসটির কোন রোড পারমিট বা চালকের ড্রাইভিং লাইসেন্স ছিলো না। তাই বাসটি জব্দ করে হিলি ১১ আনসার ব্যাটালিয়নে আনা হয়েছে।

একজন পুরুষ যাত্রী বলেন, এতো রাতে আমরা কোথায় যাবো। ঢাকায় যাবো কি করে নতুবা বাড়িতে পৌছাবো কিভাবে?

বাসের একজন মহিলা যাত্রী (গার্মেন্টস কর্মী) বলেন, অফিস থেকে বার বার আমাদের ঢাকায় পৌছানোর জন্য ফোনে বলা হচ্ছে। আমরা চাকরী বাঁচার জন্য নিরুপায় হয়ে যেতে হচ্ছে। তিনদিন সময় দিয়েছে, এর মধ্যে উপস্থিত না হলে আমাদের চাকরীচ্যুত করা হবে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*