৫৫ দিনেই মাধ্যমিকের ফল প্রকাশ করায় প্রধানমন্ত্রীর ধন্যবাদ

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

পজিটিভ বিডি নিউজ ২৪ ডট কম: এবারের এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফলের প্রশংসা করে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা আশাবাদ ব্যক্ত করেছেন, শিক্ষার্থীরা আরো মনোযোগী হলে ভবিষ্যতে তারা আরো ভালো ফল করতে পারবে। তিনি বলেন, ‘৭৩ দশমিক ৯৩ ভাগ পাস করেছে। এটা যথেষ্ট ভালো ও গ্রহণযোগ্য ফল। আমি মনে করি, শিক্ষার প্রতি শিক্ষার্থীরা আরো মনোযোগী হলে তারা আরো ভালো ফল করতে পারবে, সেটা আমার বিশ্বাস।’

গতকাল বুধবার সকালে গণভবনে এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফল হস্তান্তর অনুষ্ঠানে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন। মাত্র ৫৫ দিনে ফল প্রকাশ করায় শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সংশ্লিষ্ট সবাইকে ধন্যবাদ জানান তিনি। একই স্থানে পৃথক অনুষ্ঠানে শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের উদ্যোগে ‘দেশব্যাপী সৃজনশীল মেধা অন্বেষণ-২০১৯’-এর জাতীয় পর্যায়ের নির্বাচিত ১২ জন সেরা মেধাবীকে পুরস্কার প্রদান করেছেন প্রধানমন্ত্রী।

ফলাফলে ছাত্রীদের পাসের হার বেশি হওয়ায় জেন্ডার সমতার কথাটি স্মরণ করিয়ে ছাত্রদেরও পাসের হার বৃদ্ধির ওপর গুরুত্বারোপ করেন শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, ‘ছাত্রদের পাসের হারটা বাড়াতে হবে, যাতে জেন্ডার সমতাটা এসে যায়।’

অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি এইচএসসি ও সমমানের পরীক্ষার ফলাফলের সারসংক্ষেপ প্রধানমন্ত্রীর হাতে তুলে দেন। পরে ১০টি শিক্ষা বোর্ডের চেয়ারম্যানরা পৃথকভাবে প্রধানমন্ত্রীর হাতে পরীক্ষার ফলাফল তুলে দেন।

তিনি বলেন, ‘আমি বিশ্বাস করি, একটা সমাজকে উন্নত করতে হলে একটি দেশকে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত, উন্নত-সমৃদ্ধ করে গড়ে তুলতে হলে শিক্ষাটাই সব থেকে গুরুত্বপূর্ণ। একটি শিক্ষিত জাতি পারবে একটি দেশকে ক্ষুধা ও দারিদ্র্যমুক্ত করে উন্নত-সমৃদ্ধভাবে গড়ে তুলতে।’

প্রধানমন্ত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশ আজ সমগ্র বিশ্বে উন্নয়নের একটি রোল মডেল এবং বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে, এগিয়ে যাবে এবং আমাদের এই উন্নয়নের গতিধারা অব্যাহত রাখতে হবে।’

প্রধানমন্ত্রীর মুখ্য সচিব মো. নজিবুর রহমান অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন। শিক্ষা উপমন্ত্রী মহিবুল হাসান চৌধুরী, শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বিভাগের সিনিয়র সচিব সোহরাব হোসেইন এবং প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম অন্যান্যের মধ্যে অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন।

সেরা ১২ মেধাবীকে পুরস্কার প্রদানকালে প্রধানমন্ত্রী দেশকে ভালোবাসার পাশাপাশি দেশের জন্য নিবেদিতপ্রাণ হয়ে কাজ করার জন্য তরুণ প্রজন্মের প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধারণ করে দেশকে সব সময় ভালোবাসবে। দেশের মানুষকে ভালোবাসবে এবং দেশকে গড়ে তোলার জন্য নিবেদিতপ্রাণ হয়ে কাজ করবে।’

শেখ হাসিনা বলেন, ‘নিজের জীবনকে যেমন সুন্দরভাবে গড়ে তুলবে, পাশাপাশি এই দেশকেও গড়ে তুলবে। এই চিন্তা-চেতনা যেন সব সময় তোমাদের মাঝে থাকে।’

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি অনুষ্ঠানে বক্তৃতা করেন এবং শিক্ষা মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. সোহরাব হোসেইন অনুষ্ঠানটি সঞ্চালনা করেন। পুরস্কার বিজয়ী মেধাবী শিক্ষার্থীদের পক্ষে অষ্টম শ্রেণির শিক্ষার্থী পারশিয়া নাওয়ার অনুষ্ঠানে নিজের অনুভূতি ব্যক্ত করে।

Be the first to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published.


*